ইয়েমেনে ইন্টারনেট

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
সানাতে সাইবার ক্যাফে

ইয়েমেনে ১৯৯৬ সালে[১] টেলি ইয়েমেন ও পাবলিক টেলিকম্যুনিকেশন্স কর্পোরেশনের ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডারের (আইএসপি) মাধ্যমে ইন্টারনেটের ব্যবহার শুরু হয়।[২][৩]

ক্রমবিকাশ[সম্পাদনা]

২০০০ থেকে ২০০৫ সালের মধ্যে ইয়েমেনের টেলি যোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি খাতে দ্রুত উন্নতি সাধিত হয়।  টেলিকম এবং তথ্যপ্রযুক্তি খাতের অবকাঠামোগত উন্নয়নে দক্ষিণ কোরিয়া সরকারের দেওয়া ৩১ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ঋণসহ মোট ৮০ বিলিয়ন ইয়েমেনি রিয়ালেরও বেশি বিনিয়োগ করা হয়।   ২০১১ সালে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ছিল মোট ৩,৫৯৭,০৯৭ জন, যেখানে ২০০৬ সালে এই সংখ্যা ছিল ১১০,০০০ এবং ১৯৯১ সালে ছিল মাত্র ৩৮০০ জন। এই সংখ্যাটি ইয়েমেনের ২০১১ সালের মোট জনসংখ্যার ১৪.৯%।[৪] ২০১১ সালে দেশটির মোবাইল ফোন নেটওয়ার্কের গ্রাহকের সংখ্যা ছিল ১১.৭ মিলিয়ন, যা ২০০৬ সালে ছিল ১.২ মিলিয়ন এবং ১৯৯১ সালে ছিল ১৫৩, ০০০ জন।[৫]

ইয়েমেনে দ্রুতগতির ইন্টারনেট সংযোগের চাহিদা অনেক বেশি,  এই চাহিদা দেশটির দুই ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাডইর, ওয়াইনেট সার্ভিসের অপারেটর টেলিনেট এবং টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের আওতাভূক্ত ইয়েমেন নেটকে এডিসিএল এবং আইএসডিএন সেবা চালু করতে বাধ্য করে। এছাড়াও সাধারণ নাগরিকদের ওয়েব সার্ভিসের এক্সেস প্রদানের লক্ষ্যে চালু হওয়া ই-গভর্নমেন্ট প্রকল্পের কারণে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বিস্ময়করভাবে বেড়েছে। কিন্তু এখনো ইন্টারনেটের গতি কাঙ্খিত মানসম্মত নয়। ইয়েমেনে ২০১০ সালে ৮৪,০০০ নিয়মিত ব্রডব্যান্ড সংযোগ ছিল।[৬]

বাছাইকরণ[সম্পাদনা]

ইন্টারনেটের উপর রাষ্ট্রীয় নজরদারি[৭][৮][৯]

ইয়েমেন ২০০৮ ও ২০০৯ সালে রিপোর্টার্স উইদাউট বর্ডারের  “নজরদারিভূক্ত দেশের” তালিকায় ছিল, কিন্তু ২০১০ এবং ২০১১ সালের এই তালিকায় ছিল না।[৯]

ইয়েমেন পর্নোগ্রাফি, নগ্নতা, গে এবং লেসবিয়ান বিষয়বস্তু প্রকাশকারী ওয়েবসাইট, রক্ষিতা এবং ডেটিং সেবা প্রদানকারী ওয়েবসাইট, উত্তেজক পোশাকের ছবি প্রদর্শনের সাইট, ইসলাম ধর্মের সমালোচনাকারী এবং/অথবা মোসলমানদের অন্য ধর্মে ধর্মান্তরিত করার প্রচেষ্টাকারী ওয়েব সাইট এবং মদ ও জুয়ার সাথে সম্পৃক্ত ওয়েবসাইটের উপর সেন্সর আরোপ করে। [১০]

ইয়েমেনের তথ্য মন্ত্রণালয় ২০০৮ সালের এপ্রিলে ঘোষণা করে, যে সকল লেখক ইন্টারনেটে বিদ্বেষভাব পোষনে প্ররোচিত করে এমন কোন লেখা বা জাতীয় চেতনা বিরোধী বিষয়বস্তু প্রকাশ করবেন, পেনাল কোড অনুসারে তাদের বিচার হবে।[১১] ইয়েমেনের দুই ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার (আইএসপি) ইয়েমেননেট এবং টেলিইয়েমেন  জুয়া, যৌনশিক্ষা এবং কিছুসংখ্যক ধর্মীয় বিষয়বস্তুর এক্সেস ব্লক করে। [১২] ইয়েমেনের ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার টেলিইয়েমেন ( ওয়াই.নেট নামেও পরিচিত) "নৈতিক, ধর্মীয়, সামাজিক কিংবা রাজনৈতিক ক্ষেত্রে অপমানজনক বার্তা" প্রদানের ক্ষেত্রে, অথবা  "ইয়েমেন প্রজাতন্ত্রে প্রযোজ্য যে কোন আইন লঙ্ঘন করে ওয়াই. নেটের এমন ব্যবহারে" বাধা দেয়।  টেলিইয়েমেন তাদের সার্ভারে সংরক্ষিত যেকোন তথ্য নিয়ন্ত্রণ করার অধিকার রাখে।.”[১৩]

ইয়েমেনের সাইবার ক্যাফেগুলোতে বদ্ধঘরে বা পর্দা দিয়ে মনিটরের পর্দা আড়াল করা বৈধ নয়, কম্পিউটারের পর্দা অবশ্যই ফ্লোর তত্ত্ববাধয়কের নিকট দৃশ্যমান হতে হবে। পুলিশ কিছুসংখ্যক সাইবার ক্যাফে মধ্যরাতে বন্ধ করার আদেশ দিয়েছে এবং ব্যবহারকারীদের পরিচয়পত্র ক্যাফে পরিচালককে দেখানোর নির্দেশ দিয়েছে।[১৪]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Yemen: All Roads Lead Backwards"The Arabic Network for Human Rights Information। ২০০৯-০২-১৮ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৬-০৮-০২ 
  2. Percentage of Individuals using the Internet 2000-2011, আন্তর্জাতিক টেলিযোগাযোগ ইউনিয়ন, accessed on 19 August 2012.
  3. Al-Zurqa, Ahmed (২০০৫-১২-০২)। "Internet Usage Surveys in Yemen"। Yemen Observer। ২০০৬-০৩-২৩ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৬-০৮-০২ 
  4. "Doing Business In Yemen: A Country Commercial Guide for U.S. Companies - Chapter 4" (PDF)। Embassy of the Republic of Yemen। ২০০৯-০৩-০৬ তারিখে মূল (PDF) থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২০০৮-১০-২৪ 
  5. "Yemen", World Factbook, U.S. Central Intelligence Agency, retrieved 16 February 2013
  6. Fixed broadband subscriptions, International Telecommunication Union.
  7. OpenNet Initiative "Summarized global Internet filtering data spreadsheet", 29 October 2012 and "Country Profiles", the OpenNet Initiative is a collaborative partnership of the Citizen Lab at the Munk School of Global Affairs, University of Toronto; the Berkman Center for Internet & Society at Harvard University; and the SecDev Group, Ottawa
  8. "Internet Enemies" ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ১২ মার্চ ২০১৪ তারিখে, Enemies of the Internet 2014: Entities at the heart of censorship and surveillance, Reporters Without Borders (Paris), 11 March 2014. Retrieved 24 June 2014.
  9. Internet Enemies ওয়েব্যাক মেশিনে আর্কাইভকৃত ২৩ মার্চ ২০১২ তারিখে, Reporters Without Borders (Paris), 12 March 2012
  10. "ONI Country Profile: Yemen", OpenNet Initiative, August 2009
  11. "Lawzi: Ma Yonshar fi Sahafat Al Internet Lan Yakon Ba'eedan A'n Al Mosa'ala bimojib Qanoon Al Oqobat" (Online journalism is subject to the penal code: Lawzi, Yemeni Minister of Information)", Saba, 3 February 2008
  12. "ONI: Internet Filtering Map" (Flash)। Open Net Initiative। সংগ্রহের তারিখ ৭ জুলাই ২০১০ 
  13. “Terms and conditions for Y.Net Service”, TeleYemen
  14. "Search for Pornographic Material on Rise; Children are most Vulnerable", Moneer Al-Omari, Yemen Post, 12 January 2009

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]