ইয়েক হাব্বেহ কান্দ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ইয়েক হাব্বেহ কান্দ
পরিচালকসাইয়্যেদ রেজা মীর-কারিমি
প্রযোজকসাইয়্যেদ রেজা মীর-কারিমি
রচয়িতাসাইয়্যেদ রেজা মীর-কারিমি
মহাম্মাদ রেজা গহারি
শ্রেষ্ঠাংশেনেগার জাভাহেরিয়ান
রেজা কিয়ানিয়ান
সাঈদ পরসামিমি
ফারহাদ আসলানি
সুরকারমহাম্মাদ রেজা আলিগলি[১]
চিত্রগ্রাহকহামিদ খযউ আবয়ানেহ
সম্পাদকহাসান হাসানদোস্ত
মুক্তি
স্থিতিকাল১১৬ মিনিট
দেশইরান
ভাষাফারসি

ইয়েক হাব্বেহ কান্দ (ফার্সি: یک حبه قند) হল সাইয়্যেদ রেজা মীর-কারিমি পরিচালিত ২০১১ সালে মুক্তি প্রাপ্ত একটি ইরানী নাট্যধর্মী চলচ্চিত্র।[২] [৩] ৮ অক্টোবর ২০১১-এ বুসান আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে এর ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হয়েছিল।

২৪ সেপ্টেম্বর ২০১২, ছবিটি ৮৫তম একাডেমি পুরস্কারে সেরা বিদেশী ভাষার চলচিত্র বিভাগে অস্কারের জন্য ইরানী এন্ট্রি হিসাবে নির্বাচিত হয়েছিল।[তথ্যসূত্র প্রয়োজন], একই দিনে, ইরানের সরকার-নিয়ন্ত্রিত সিনেমা সংস্থার প্রধান ইউটিউবে ইনোসেন্স অফ মুসলিমস শিরোনামের একটি ভিডিওর কারণে অস্কার বয়কটের আহ্বান জানিয়েছিলেন যেটা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র থেকে প্রকাশিত হয়েছিল।[৪] রয়টার্স জানায়, ইরানের সংস্কৃতি ও ইসলামিক গাইডেন্স মন্ত্রী মোহাম্মদ হোসেইনি ইরান বয়কট করবে বলে নিশ্চিত করেছেন। [৫]

পটভূমি[সম্পাদনা]

এই মুভিতে দুটি সমসাময়িক গল্প রয়েছে: মূল প্লটটি পাসন্দিদেহকে কেন্দ্র করে এবং একটি উপপ্লট হরমোজকে কেন্দ্র করে। মূল প্লটটি একটি অত্যন্ত ঐতিহ্যবাহী ইরানী পরিবারের জীবনের একটি দিন বর্ণনা করা হয়েছে। পরিবারের ছোট মেয়ে পসন্দিদেহ তার মা, তার বৃদ্ধ চাচা এবং চাচির সাথে থাকে। তারা গ্রামের একটি পুরনো বাড়িতে থাকে। শীঘ্রই তার এক পারিবারিক বন্ধুর নাতিকে বিয়ে করার কথা রয়েছে, যে বিদেশে পড়াশোনা করছে। পসন্দিদেহের বিয়ের জন্য ইতিমধ্যেই সবকিছু ঠিক করা হয়েছে, এবং তার বোনেরা একে একে পুরনো বাড়িতে আসে বিয়ের অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার জন্য।

এদিকে, পাসন্দিদেহের বোনের স্বামী হরমোজ সম্প্রতি কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছে। পাসন্দিদেহের আরেক বোনের স্বামী হামিদের সহায়তায় তিনি একটি গুপ্তধন খোঁজার চেষ্টা করেন। তারা বিশ্বাস করে যে এটি পাসান্দিদেহের বাড়িতে কোথাও মাটির নিচে পুতে রাখা আছে এবং সেটির খুজে বিয়ের অনুষ্ঠান চলাকালীন সময় তারা লুকিয়ে সেটির খুজ করতে থাকে।

অভিনয়শিল্পী[সম্পাদনা]

  • শামসির চরিত্রে পুনেহ আবদোলকারিম-জাদেহ
  • ঘাসেম চরিত্রে আমির হোসেন আরমান
  • হজ নাসেরের চরিত্রে ফরহাদ আসলানি
  • চাচার স্ত্রীর চরিত্রে শামসি ফজলুল্লাহি
  • হামিদের চরিত্রে হেদায়েত হাশেমী
  • হরমোজের চরিত্রে আসগর হেম্মত
  • পাসন্দিদেহ চরিত্রে নেগার জাভেরিয়ান
  • জাফরের চরিত্রে রেজা কিয়ানিয়ান
  • বরের আত্মীয় হিসাবে বারান কোসারি
  • ডাক্তার হিসেবে রোহুল্লাহ মফিদী
  • মাসুমেহ চরিত্রে পরিভাস নাজারিয়েহ
  • চাচা ইজ্জাতোলাহ চরিত্রে সাইদ পুরসমিমি
  • আজম চরিত্রে রিমা রামিনফার

পুরস্কার এবং প্রশংসা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "A Cube of Sugar Film Details"Soureh Pictures Company। ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১১ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ 
  2. Smith, Ian Hayden (২০১২)। International Film Guide 2012। পৃষ্ঠা 146আইএসবিএন 978-1908215017 
  3. "A Cube of Sugar"Miami Film Festival। ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ৩১ আগস্ট ২০১২ 
  4. "Iran to write to Academy over anti-Islam film"Tehran Times। ২১ সেপ্টেম্বর ২০১২। ২২ নভেম্বর ২০১২ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১২ 
  5. "Iran Oscars Boycott"Reuters। ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১২। সংগ্রহের তারিখ ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১২ 
  6. ""Nader and Simin", "A Cube of Sugar" lead nominees at Iranian festival"Mehr News Agency। ২৯ আগস্ট ২০১১।