আহমেদ মোহামেদ ঘড়ি ঘটনা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার টুইট, আহমেদ মোহামেদকে উদ্দেশ্য করে

২০১৫-র সেপ্টেম্বরে, আহমেদ মোহামেদ নামের ১৪ বছরের এক সৎ আমেরিকান মুসলিম ছেলেকে হক্স বোমা তৈরি করেছে বলে সন্দেহ করা হয় এবং তাকে তার বিদ্যালয় থেকে ববহিষ্কার করা হয় এবং তাকে পুলিশ হেফাযতে নেয়া হয়। তাকে সন্দেহ করার কারনটি ছিলো তার নিজের তৈরিকৃত ঘড়িরর শব্দটি শুনার পর। সে ছোট আকৃতির ব্রিফকেস ভল্ট লকিং ধরনের একটি পেনসিল বক্স তৈরি করেছিল যাতে একটি ডিজিটাল ঘড়ি বসানো হয়েছিল। হঠাৎ এর সার্কিট-এর মাইক্রোন্টা[১] ডিজিটাল ঘড়ি থেকে বিপিং আওয়াজ বের হতে শুরু করে।[২] সে তার ইঞ্জিনিয়ারিং শিক্ষককে দেখানোর জন্য নিয়ে আসে। তার তৈরিকৃত জিনিস থেকে আওয়াজ শুনতে পাওয়ার পর, তাকে হেন্ডকাপ পরিয়ে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়, তাকে সুরক্ষিত যানবাহননের মাধ্যমে নেয়া যাওয়া হয় এবং তার আঙুলের ছাপ সংগ্রহ করা হয়। এই ঘটনা রেসিয়াল প্রোফিলিং এবং ইসলামোফোবিয়া তে তর্ক বির্তকের বিষয় হয়ে উঠে। মোহামেদ অনেকের কাছ থেকেই সমবেদনা ও সমর্থন পায়, এমনকি মার্কিন রাষ্ট্রপতি বারাক ওবামা, রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী হিলারি ক্লিনটন , ফেসবুক প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকারবার্গ, গুগল সহ প্রতিষ্ঠাতা সারজে বেন এবং অবসরপ্রাপ্ত মহাকাশচারী ক্রিস হেডফিল্ড দের কাছ থেকে সমবেদনা ও সমর্থন পায়।

ঘটনা[সম্পাদনা]

2015-09-16 White House Press Briefing on student Ahmed Mohamed

একটি সংবাদ অণুসারে জানা যায় ডাল্লাস মর্নিং নিউজ এর এক সাক্ষাৎকারে মোহামেদ বলে সে ঘড়িটি তার নিজ বাসার যন্ত্রপাতি সরবারহ করে ঘড়িটি নির্মাণ করেন,সে আরো বলে "একটি বর্তনী বোর্ড এবং পাওয়ার সাপ্লাই একটি ডিজিটাল ডিসপ্লে কে সংযুক্ত করে ঘড়িটি নির্মাণ করা হয়েছিল , বাক্সের মধ্যে সব সাজিয়ে বসানো হয়েছিল, বাক্সটির সামনে বাঘের হলোগ্রাম ছিলো। রবিবার তার এই কাজটি করতে প্রায় ২০ মিনিট সময় ব্যয় করতে হয়েছিলো তার ঘুমানোর সম্য থেকে, তার সকল নির্মাণ কর্মকাণ্ডের মধ্যে এটি অসাধারণ।"[৩]

পরের দিন, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে সে ঘড়িটি বিদ্যালয়ে নিয়ে যান তার প্রকৌশলি শিক্ষক কে দেখাতে, তাকে দেখালে সে বলে এটা অসাধারণ এবং এটা কাউককে না দেখাতে, আরো বলেন এতাকে তার ব্যাকপ্যাকে রেখে দিতে বিদ্যালয় ছুটি না হওয়া পর্যন্ত। [৩] যাইহোক , পরে সে ইংরেজি ক্লাস চলাকালিন সময়ে সে এটা চালু করে এবং এটি বিপিং করতে শুরু করে। ইংরেজি শিক্ষক শুনতে পেয়ে তাকে জিনিসটি দেখানোর অণুরোধ করেন, তখন সে তাকে জিনিসটি দেখায়, তার শিক্ষক তাকে বলেন এটা দারুণ কিন্তু এটা অনেকটা বোমার মত, সে আর বলেন এই জিনিসটি কাওকে না দেখাতে।""[৪] ইংরেজি শিক্ষক অধ্যক্ষের অফিসে বিষয়টি জানায় এবং পুলিশকে জানান। অধ্যক্ষ ও পুলিশ কর্মকর্তা ততাকে শ্রেণী থেকে নিয়ে জান একটি রুমে যেখানে আরো ৪ জন কর্মকর্তা ছিলেন। [৩] প্রায় দদেড় ঘন্টা যাবত তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। তাকে হএক্স বোম তৈরির প্রচেষ্টা করার জন্য হেন্ডকাফ পড়িয়ে পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয় এবং রতার আঙুলের ছাপ সরবারহ করা হয়, পরে ততাকে ততার পপিতামাতার কাছে হস্তান্ত্র করা হয়।[৩][৫][৬][৭][৮][৯][১০] মোহামেদ আরো জানান, জিজ্ঞাসাবাদ কালিন সময়ে সে তার পরিবারের সাথে যোগাযোগ করতে পারবে না এএবং ততার অধ্যক্ষ হুমকি দেন যদি সে ললিখিত জবানবন্দী না দেয় তাহলে তাকে বহিষ্কার করা হবে।[৩] এমনকি তাকে চছেড়ে দেওয়ার পর, পুলিশ কর্মকর্তা মানতে চান না যে মোহামেদ ঘড়ি বানিয়েছে, বোমা তৈরির উদ্দেশ্য ছিল না কিন্তু সেখানে এই বিষয়ে কোনো ব্যাখা ছিল না।"[৩][১১] মোহামেদকে তার বিদ্যালয় থেকে তিন দিনের জন্য বহিষ্কার করা হয়েছিল।[১২] বিদ্যালয় থেকে বলা হয় তাকে পরে সাদরে গ্রহণ করা হয় এবং আর উপর থেকে শাস্তি তুলে নেয়া হয়।[১৩]

টেক্সাস আইন অণুযায়ী হএক্স বোম তৈরি বা চেষ্টা করা বেআইনি। কারণ এই বোমা বিস্ফোরক এর মত মানুষের মনে আতঙ্ক ফেলে দেয় এর এলার্মের মাধ্যমে।[১৪] তবে মোহাম্মেদ এর উপর ক্রাইমের কোনো চার্জ করা হয়নি, তাকে শুধু জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে, শুধু জানার জন্য তার উদ্দেশ্য কি ছিল, ততার নির্মাণ বস্তুটি দেখে অনেকেই তাকে সমর্থন করে এবং তাকে পুলিশ হেফাজতে পাঠনো হয়, জুভেনাইল কেন্দ্রে। উদাহরণস্বরুপ যুক্তরাষ্ট্রের ইসলামোফোবিয়া

পিছনের ঘটনা[সম্পাদনা]

চিত্র:Ahmed Mohamed Clock by Irving PD.jpg
Photo of Ahmed Mohamed's clock by the Irving Police Department.

উপরের চিত্রটি অপসারণের প্রস্তাবনায় আছে। এর বিস্তারিত জানতে দেখুন ফাইল অপসারণ

১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৫, সোমবার সেদিন সকালে ১৪বছরের কিশোর মোহামেদ স্থানীয় এক মিডিয়াকে সাক্ষাৎকারে বলেন সে তার প্রকৌশলী শিক্ষক কে দেখাতে চেয়েছিলেন যা সে সপ্তাহের শেষ দিন ওয়েব থেকে শিখে সে যেটি তৈরি করছিলেন এবং সেটি নির্মাণ করছিলেন তার পেন্সিল বক্স দিয়ে। [১৫] তার পিতা, মোহামেদ এলহাসান মোহামেদ বলেছেন, সোমবার সকালে তার ছেলেকে স্কুলে ছেরে আসেন এবং তার প্রকৌশলী বিদ্যার যে সামর্থ তা আত্র সিক্ষক কে দেখাতে উৎসাহিত করেন। [১৬]

আল জাজিরা'র আলি ভেলসি অন টার্গেট, এর সাক্ষাৎকারে মোহামেদ বলেন তার ঘরে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা বিভিন্ন ইলেকট্রিক জন্ত্রপাতি দিয়ে তৈরি করেন এবং আগে থেকেই কিছু ইলেকট্রিক বোর্ড তৈরি করা ছিলো। "[১৭]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Chase, Anthony (সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৫)। "Reverse Engineering Ahmed Mohamed's Clock… and Ourselves."Artvoice। Khansama Publications, Inc.। ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৫ 
  2. Whitely, Jason (সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৫)। "Irving ISD student detained for 'suspicious device'"WFAA News। Dallas, Texas। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৫ 
  3. Selk, Avi (সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৫)। "Irving 9th-grader arrested after taking homemade clock to school: 'So you tried to make a bomb?'"। The Dallas Morning News। ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে মূল থেকে আর্কাইভ করা। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৫ 
  4. Heller, Corinne (১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৫)। "Barack Obama Supports Ahmed Mohamed, 14, Who Brought to School Homemade Clock That Teachers Mistook for Bomb"। Eonline। সংগ্রহের তারিখ ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৫ 
  5. "Irving Police Chief Defends Response to Ahmed Mohamed's Clock"। NY Times। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৫ 
  6. "Ahmed Mohamed's parents serve pizza to a crowd of reporters outside their house"। Yahoo News। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৫ 
  7. "Muslim teen cuffed over clock mistaken for bomb speaks out"। CBS News। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৫ 
  8. "Was Ahmed Mohamed arrested because he is Muslim?"। Al-Jazeera। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ১৮, ২০১৫ 
  9. "Muslim teen Ahmed Mohamed creates clock, shows teachers, gets arrested"CNN। সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৫ 
  10. Abby Philip, Sarah Kaplan (সেপ্টেম্বর ১৬, ২০১৫)। "'They thought it was a bomb': 9th-grader arrested after bringing a home-built clock to school"Washington Post। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৫ 
  11. O'Malley, Nick (সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৫)। "Ahmed Mohamed's handmade clock led to his arrest, then White House invite"Sydney Morning Herald। Washington DC। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৫ 
  12. Glenza, J., and Woolf, N., Texas Schoolboy Arrested over Clock to Visit Obama as Authorities Defend Action, The Guardian, September 17, 2015.
  13. Pelletiere, Nicole (সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৫)। "Ahmed Mohamed's High School Says He's Welcome Back, But Supports Teacher Who Reported Clock"ABC News। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৫ 
  14. "Sec. 46.08. HOAX BOMBS."Texas Constitution and Statutes। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৫ 
  15. "Texas High School Student Shows Off Homemade Clock, Gets Handcuffed"। NPR। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৫ 
  16. Kalthoff, Ken; Bryan, Ellen (সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৫)। "Irving Teen Says He's Falsely Accused of Making a 'Hoax Bomb'"nbcdfw.com। NBC 5 - KXAS। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৫ 
  17. "'I felt like a terrorist'"। Al Jazeera। সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৫। সংগ্রহের তারিখ সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৫