আলাপ:জিয়াউদ্দিন আহমেদ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

লে. কর্নেল জিয়াউদ্দিন (বীর উত্তম) বনাম মেজর জিয়াউদ্দিন[সম্পাদনা]

সম্প্রতি সচলায়তনের এই নিবন্ধে ৬ নম্বরে হিমুদা'র মন্তব্যে দৃষ্টি আকৃষ্ট হলো, তিনি লিখেছেন:

মেজর জিয়াউদ্দিন বীর উত্তম ছিলেন না। বীর উত্তম ছিলেন লেফটেন্যান্ট কর্নেল জিয়াউদ্দিন, যাঁকে শৃঙ্খলাভঙ্গের অপরাধে ১৯৭৪ সালে বাহিনী থেকে বহিষ্কার করা হয়। বাংলা উইকিপিডিয়ার ভুক্তিতেও দুই জিয়াউদ্দিনকে গুলিয়ে এক করা হয়েছে দেখলাম।

আমি এবিষয়ে জ্ঞান কম রাখি, আর ঘাঁটাঘাটির উপকরণও হাতের নাগালে নেই এই মুহূর্তে। তবে কিছুদূর ঘাঁটাঘাটির পরে বুঝতে পেরেছি, হিমুদা সম্ভবত ভুল বলছেন না। তবে একটা কথা মাথায় রাখতে হবে, মুক্তিযুদ্ধকালীন মেজর জিয়াউদ্দিন আহমেদ কিন্তু লে. কর্নেলই ছিলেন। পরে তিনি মেজর হয়েছেন। কিন্তু চ্যানেল আই-এর তৃতীয় মাত্রা (৪০৮৪) অনুষ্ঠানের এই পর্বে (13:59) তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল, ৯ নম্বর সেক্টর থেকে কেউ বোধহয় গ্যালেন্ট্রি অ্যাওয়ার্ড পাননি? তখন তিনি নিজের কথা বলেননি, বরং শাহজাহান ওমরের (বীর উত্তম) আর কথা বলেছেন।

মূল পয়েন্টটা হচ্ছে, আমরা বোধহয় সত্যিই লে. কর্নেল জিয়াউদ্দিন আহমেদ (বীর উত্তম) আর মেজর জিয়াউদ্দিন আহমেদ (৯ নম্বরের সাব-সেক্টর কমান্ডার)-এর মধ্যে একটা তালগোল পাকিয়ে রেখেছি। —মঈনুল ইসলাম (আলাপঅবদান) ০৮:৩৯, ১৫ আগস্ট ২০২০ (ইউটিসি)[উত্তর দিন]