আগ্রাবাদ সরকারি কলোনী উচ্চ বিদ্যালয়

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সরাসরি যাও: পরিভ্রমণ, অনুসন্ধান
অন্য ব্যবহারের জন্য, দেখুন আগ্রাবাদ (দ্ব্যর্থতা নিরসন)
আগ্রাবাদ সরকারি কলোনি উচ্চ বিদ্যালয়
ঠিকানা
সেন্ট্রাল গভর্নমেন্ট ষ্টাফ (সিজিএস) কলোনি (বালিকা শাখা)
জাম্বুরি মাঠ সংলগ্ন সড়ক (বালক শাখা)[১]

আগ্রাবাদ
চট্টগ্রাম, বাংলাদেশ, ৪১০০
বাংলাদেশ
স্থানাঙ্ক ২২°১৯′৩৭″ উত্তর ৯১°৪৮′৩২″ পূর্ব / ২২.৩২৬৯৪° উত্তর ৯১.৮০৮৮৯° পূর্ব / 22.32694; 91.80889
তথ্য
ধরন বেসরকারি বিদ্যালয়
প্রতিষ্ঠাকাল ১৯৬০
অবস্থা সক্রিয়
ভগিনী বিদ্যালয় আগ্রাবাদ সরকারি কলোনি উচ্চ বিদ্যালয় (বালিকা শাখা)
আগ্রাবাদ সরকারি কলোনি উচ্চ বিদ্যালয় (বালক শাখা)
বিদ্যালয় জেলা চট্টগ্রাম
সেশন জানুয়ারি-ডিসেম্বর
চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলতাফ হোসাইন চৌধুরী (বাচ্চু)
প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ সামসুদ্দিন
অনুষদ
লিঙ্গ ছেলে, মেয়ে
বয়সসীমা মাধ্যমিক
ছাত্র সংখ্যা ১৩০০ বালিকা[২]
শ্রেণী ১-১০
শিক্ষাদানের মাধ্যম জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড
ভাষার মাধ্যম বাংলা
ভাষা বাংলা
ক্যাম্পাসের ধরন শহুরে
ক্রীড়া ক্রিকেট, ফুটবল
ওয়েবসাইট

আগ্রাবাদ সরকারি কলোনি উচ্চ বিদ্যালয় বন্দর নগরী চট্টগ্রামের একটি বেসরকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান[৩][৪] এটি চট্টগ্রামের অন্যতম প্রাচীন বিদ্যালয়। মাধ্যমিক বিদ্যালয় হিসেবে সুপরিচিত হলেও বর্তমানে এখানে কিন্ডারগার্টেন থেকে শুরু করে মাধ্যমিক শ্রেনী পর্যন্ত লেখাপড়ার ব্যবস্থা চালু রয়েছে।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

আগ্রাবাদ সরকারি কলোনি উচ্চ বিদ্যালয় চট্টগ্রাম জেলার আগ্রাবাদে ১৯৬০ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়।[১] সরকারি কর্মচারী এবং অধিবাসীদের ছেলেমেয়েদের সুষ্ঠু লেখাপড়ার জন্যে আগ্রাবাদ গভর্নমেন্ট কলোনী এসোসিয়েশনের ৩রা জানুয়ারি, ১৯৫৬ সালে অণুষ্ঠিত কমিটির সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত অণুযায়ী বিদ্যালয়টি স্থাপন করা হয়েছিল। শুরুতে প্রাথমিক বিদ্যালয় হিসেবে এটি কার্যক্রম শুরু করে। স্থানাভাবে কখনো গণপূর্ত বিভাগের (পিডব্লউডি) গোডাউনে কখনো নির্মানাধীন কোয়ার্টারে শ্রেণীকার্যক্রম সম্পাদনা করা হত।

১৯৬০ সাল থেকে 'জুনিয়র হাই স্কুল' হিসেবে শ্রেণীকার্যক্রম শুরু হয়। তখন গোডাউনটি স্কুল কর্তৃপক্ষের কাছে হস্তান্তর করা হয়। ১৯৬৫-৬৬ সালে জনাব "এইচ. আকবর আলী" নামে এক দানবীরের অর্থে স্কুলের মূল ভবনটি নির্মিত হয়। কৃতজ্ঞতা স্বরূপ তার নামে স্কুলের অডিটোরিয়ামের নামকরণ করা হয় “এইচ. আকবর আলী হল”। তবে অত্যধিক ছাত্র-ছাত্রীর কারণে তা শ্রেণীকক্ষ হিসেবে ব্যবহার করা হয়। এছাড়া অত্র এলাকার দানশীল "আলহাজ ওসমান গণি" সাহেবের নাম কৃতজ্ঞতা সহকারে স্মরণ করা হয় আজো। স্কুলটি ১লা এপ্রিল, ১৯৬৩ সাল থেকে কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডের স্বীকৃতি অর্জন করে, তখন ছাত্র সংখ্যা ছিলো ৭৯ জন মাত্র। ১৯৬৪ সালে এই স্কুল থেকে ১ম ব্যাচের ছাত্র-ছাত্রীরা এস,এস,সি পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে। বর্তমানে এই প্রতিষ্ঠানে প্রায় ৩০০০ ছাত্র ছাত্রী পড়াশোনা করে।

সুযোগ-সুবিধা[সম্পাদনা]

আগ্রাবাদ সরকারি কলোনি উচ্চ বিদ্যালয়ের বর্তমানে ৩টি শাখা রয়েছে- কিন্ডারগার্টেন শাখা, বালক শাখা ও বালিকা শাখা। এর মধ্যে কিন্ডারগার্টেন শাখায় "প্লে গ্রুপ" থেকে পঞ্চম শ্রেণী পর্যন্ত ছাত্র-ছাত্রী পড়ছে। মাধ্যমিক শাখায় বালক ও বালিকাদের দুইটি ভিন্ন স্কুল বিল্ডিং রয়েছে। উভয় শাখাতেই ষষ্ঠ থেকে দশম শ্রেণী পর্যন্ত পড়াশোনা চলু আছে। তিন শাখা মিলে প্রায় ৮০ জন শিক্ষক শিক্ষিকা শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করছেন। বিদ্যালয়ের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের একটি সংঘটন কাজ করে যাচ্ছে।

সহশিক্ষা কার্যক্রম[সম্পাদনা]

এই বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীরা পড়াশোনার পাশাপাশি বিভিন্ন খেলাধুলা যেমন ক্রিকেট, ফুটবল ইত্যাদিতে অংশ নিয়ে থাকে।[৫]

আরও দেখুন[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "আগ্রাবাদ সরকারি কলোনী উচ্চ বিদ্যালয়"ctg.eypages.com (বাংলা ভাষায়)। ytgtozfm: ctg.eypages.com। সংগৃহীত আগস্ট ৮, ২০১৫ 
  2. "Government Colony Girls High Schools"connect-bangladesh.org (ইংরেজি ভাষায়)। connect-bangladesh.org। সংগৃহীত আগস্ট ৮, ২০১৫ 
  3. "স্কুল মাদ্রাসার টেলিফোন ও মোবাইল নম্বর রেজিস্টার"chittagong.gov.bd (বাংলা ভাষায়)। চট্টগ্রাম: chittagong.gov.bd। সংগৃহীত আগস্ট ৮, ২০১৫ 
  4. "ইতিহাস ও ঐতিহ্য-চট্টগ্রাম"abmmohiuddinchy.com (বাংলা ভাষায়)। চট্টগ্রাম: abmmohiuddinchy। সংগৃহীত আগস্ট ৮, ২০১৫ 
  5. প্রেস বিজ্ঞপ্তি (মার্চ ১৮, ২০১২)। "আগ্রাবাদ সরকারি কলোনী উচ্চ বিদ্যালয়ের আন্তঃ শ্রেণী ক্রিকেট সম্পন্ন"দৈনিক আজাদী (চট্টগ্রাম)। সংগৃহীত আগস্ট ৮, ২০১৫ 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]