অশোকনগর, উত্তর চব্বিশ পরগনা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
(অশোকনগর, উঃ ২৪ পরগনা থেকে পুনর্নির্দেশিত)
Ashokenagar Kalyanagarh
অশোকনগর কল্যাণগড়
অশোকনগর
City
অশোকনগর, উত্তর চব্বিশ পরগনা West Bengal-এ অবস্থিত
Ashokenagar Kalyanagarh
Ashokenagar Kalyanagarh
Location in West Bengal, India
স্থানাঙ্ক: ২২°৪৯′৫৯″উত্তর ৮৮°৩৭′৫৯″পূর্ব / ২২.৮৩৩° উত্তর ৮৮.৬৩৩° পূর্ব / 22.833; 88.633স্থানাঙ্ক: ২২°৪৯′৫৯″উত্তর ৮৮°৩৭′৫৯″পূর্ব / ২২.৮৩৩° উত্তর ৮৮.৬৩৩° পূর্ব / 22.833; 88.633
দেশ  ভারত
রাজ্য পশ্চিমবঙ্গ
জেলা উত্তর চব্বিশ পরগনা
নামকরণের কারণ অশোক কুমার সেন
সরকার
 • পৌর প্রধান প্রবোধ সরকার[১]
 • বিধায়ক ধীমান রায়
জনসংখ্যা (2011)
 • মোট ১,২৩,৯০৬
Languages
 • Official Bengali, Hindi, English
সময় অঞ্চল IST (ইউটিসি+5:30)
PIN 743222,743272
Telephone code (std_code) 03216
লোকসভা কেন্দ্র বারাসাত
বিধানসভা কেন্দ্র অশোকনগর
ওয়েবসাইট www.habralocal.com

অশোকনগর কল্যাণগড় পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলার বারাসাত সদর মহকুমার অশোকনগর থানার অধীন একটি শহর ও একটি পৌরসভা এলাকা [২]। পুরসভার নাম অশোকনগর কল্যাণগড় পৌরসভা

অশোকনগর কল্যাণগড়ের এক বিরাট ঐতিহ্য আছে এখানকার রাজনৈতিক চেতনা, শিক্ষা ও সাংস্কৃতিক আন্দোলন প্রভৃতির জন্য। এই শহরটি তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী ডাঃ বি.সি.রায় দ্বারা পরিকল্পিত। কিন্তু এর প্রধান স্থপতি প্রয়াত কংগ্রেস নেতা তরুন কান্তি ঘোষ, প্রয়াত কংগ্রেস নেতা কেশব ভট্টাচার্য, প্রয়াত সিপিআই(এম) নেতা ননী কর এবং প্রয়াত সিপিআই নেতা ডাঃ সাধন সেন।

অশোকনগর-কল্যাণগড় পৌরসভা এলাকার অধীন পর্যটক আকর্ষণ করার মতো দুটি উদ্যান রয়েছে - সংহতি পার্ক এবং মিলেনিয়াম সায়েন্স পার্ক। এখানে একটি ডিগ্রী কলেজ, দুটি হাসপাতাল, বেশ কয়েকটি উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, একটি ইঞ্জিনিয়ারিং এবং ম্যানেজমেন্ট কলেজ, দুটি কমিউনিটি হল, একাধিক সাব-কমিউনিটি হল, একটি স্টেডিয়াম, একটি পিকনিক গার্ডেন, ভাল গ্রন্থাগার, একটি সুইমিং পুল এবংতিনটি মাল্টি জিম আছে। এখানে দুটি ইংরেজি মিডিয়াম স্কুলও আছে। রেল ও সড়ক পথের মাধ্যমে অশোকনগর কোলকাতার সঙ্গে সংযুক্ত।

এলাকার স্কুল গুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য অশোকনগর বানিপীঠ উচ্চমাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, অশোকনগর আদর্শ বালিকা বিদ্যালয়, অশোকনগর বয়েজ সেকেন্ডারি স্কুল, কল্যাণগড় বিদ্যামন্দির, কল্যাণগড় বালিকা বিদ্যালয়, বিবেকানন্দ বিদ্যামন্দির, হরিপুর সংস্কৃতি সঙ্ঘ ইত্যাদি।

এছাড়াও রেলওয়ে স্টেশনের ঠিক বিপরীতে কল্যাণী স্পিনিং মিল নামে একটি কারখানা রয়েছে। অনেক আগে এখানে RIC-র একটি ইউনিট ছিল এবং একটি রাসায়নিক কারখানাও ছিল। কিন্তু পরবর্তী কালে সেগুলো বন্ধ হয়ে যায়।

অশোকনগর কল্যাণগড় বিখ্যাত কল্যাণগড় অঞ্চলের জগদ্ধাত্রী পুজো উপলক্ষে। এই অঞ্চলের জগদ্ধাত্রী পুজো জেলায় নাম ছড়িয়েছে।এই অঞ্চলকে দ্বিতীয় চন্দননগর বলা হয়।।

ইতিহাস[সম্পাদনা]

ব্রিটিশ আমলে অশোকনগর একটি রয়াল এয়ার ফোর্স (RAF) স্টেশন অর্থাৎ একটি বিমানঘাঁটি ছিল। স্বাধীনতার পর পশ্চিমবঙ্গের তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী ডঃ বিধান চন্দ্র রায় একে একটি পরিকল্পিত শহরে উন্নীত করেন। পূর্বে এই শহর "হাবড়া আরবান কলোনি" নামে পরিচিত ছিল। পরবর্তীতে এর উত্তর-পূর্ব অংশের নামকরণ করা হয় "কল্যাণগড়" এবং দক্ষিণ-পশ্চিম অংশের নামকরণ করা হয় "অশোকনগর"

রাজনীতি[সম্পাদনা]

ভূগোল[সম্পাদনা]

অশোকনগরের ভৌগলিক অবস্থান :- 22°49′59″N 88°37′59″E / 22.833°N 88.633°E.

জনসংখ্যার পরিসংখ্যান[সম্পাদনা]

২০১১ সালে ভারতের আদমশুমারি অনুযায়ী অশোকনগরের জনসংখ্যা ছিল ১,২৩,৯০৬। এর মধ্যে পুরুষ ৬২,৫৫৪ জন এবং নারী ৬১,৩৫২। 0-৬ বছর বয়সী দের সংখ্যা ছিল ৮৮৮৫। অশোকনগরের সাক্ষরতার গড় হার ছিল ৯২.৪৫ % [৩]

শিক্ষা[সম্পাদনা]

এখানকার সাক্ষরতার হার ৯২.৪৫ % (২০১১ সালের আদমশুমারি অনুযায়ী) [৪]। অশোকনগর-কল্যাণগড় পৌর এলাকায় মেয়েদের ও ছেলেদের জন্য বেশ কয়েকটি উচ্চবিদ্যালয় এবং প্রচুর প্রাথমিক বিদ্যালয় (সরকারি ও বেসরকারি) আছে।

বিদ্যালয়[সম্পাদনা]

  • অশোকনগর বয়েজ সেকেন্ডারি স্কুল,
  • অশোকনগর বাণীপীঠ গার্লস হাই স্কুল,
  • অশোকনগর আদর্শ বালিকা বিদ্যালয়,
  • কল্যাণগড় বিদ্যামন্দির,
  • কালীতলা বাণী মন্দির উচ্চ বিদ্যালয়,
  • কল্যাণগড় বালিকা বিদ্যালয়,
  • অশোকনগর বিদ্যাসাগর বাণী ভবন,
  • অশোকনগর বিবেকানন্দ বিদ্যালয়,
  • কমলা নেহেরু বালিকা বিদ্যালয়,
  • মা সারদামণি বালিকা বিদ্যালয়,
  • অশোকনগর উচ্চ বিদ্যালয়,
  • কল্যাণগড় বিধান বিদ্যাপীঠ,
  • হরিপুর সংস্কৃতি সংঘ উচ্চ বিদ্যালয়,
  • হরিপুর সংস্কৃতি সংঘ বালিকা বিদ্যালয়,
  • সেনডাঙা চতুর্দশ পল্লী হাই স্কুল ।

কলেজ[সম্পাদনা]

নেতাজি শতবার্ষিকী মহাবিদ্যালয়

পরিবহণ[সম্পাদনা]

অশোকনগর পূর্ব রেল-এর শিয়ালদহ - বনগাঁ লাইনে শিয়ালদহ স্টেশন থেকে ৪১ কিলোমিটার (২৫ মাইল) এবং বারাসাত স্টেশন থেকে ২৩ কিমি [৫]। অশোকনগর সড়ক পথে সরাসরি NH 35 (যশোর রোড)-এর সঙ্গে সংযুক্ত।

হাবড়া বাস টার্মিনাল থেকে প্রত্যহ বাস যায় নৈহাটি , হাবড়া, মছলন্দপুর, বনগাঁ, বারাসাত , মধ্যমগ্রাম, কল্যাণী , বসিরহাট, বাগদা, চাকদা, কলকাতা,দীঘা, দুর্গাপুর , ব্যান্ডেল , বারুইপুর, হাওড়া , কৃষ্ণনগর প্রভৃতি জায়গায়। অশোকনগর বাইপাস রোড সরাসরি সংযুক্ত NH 35 (যশোর রোড) এবং NH 34(শিলিগুড়ি থেকে কলকাতা)-এর সঙ্গে।

সংস্কৃতি[সম্পাদনা]

খেলাধূলা[সম্পাদনা]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Official District Administration site
  2. District-wise list of statutory towns
  3. "Census of India 2001: Data from the 2001 Census, including cities, villages and towns (Provisional)"। Census Commission of India। আসল থেকে ২০০৪-০৬-১৬-এ আর্কাইভ করা। সংগৃহীত ২০০৮-১১-০১ 
  4. "Census of India 2001: Data from the 2001 Census, including cities, villages and towns (Provisional)"। Census Commission of India। আসল থেকে ২০০৪-০৬-১৬-এ আর্কাইভ করা। সংগৃহীত ২০০৮-১১-০১ 
  5. Eastern Railway time table