স্মৃতি

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

মস্তিষ্কে তথ্য ধারণ করে রাখার প্রক্রিয়া কিংবা মস্তিষ্কে ধারণকৃত তথ্যকে স্মৃতি বলে। এই প্রক্রিয়ায় প্রথমে তথ্য আহরণ করে মস্তিষ্কে জমা করা হয় এবং দরকার অনুযায়ী সেই তথ্য আবার ভান্ডার থেকে খুঁজে নিয়ে আসা হয়। জমাকৃত তথ্য হারিয়ে গেলে কিংবা সময়মত খুঁজে পাওয়া না গেলে তা দূর্বল স্মৃতিশক্তির লক্ষণ। অত্যধিক মানসিক চাপের কারণে স্মৃতি-দৌর্বল্য দেখা দেয়।

স্মৃতির প্রকারভেদঃ[সম্পাদনা]

  • সংবেদী স্মৃতি
  • স্বল্প মেয়াদী স্মৃতি
  • দীর্ঘ মেয়াদী স্মৃতি

সংবেদী স্মৃতিঃ[সম্পাদনা]

কয়েক সেকেন্ড বা তারও কম সময় যে স্মৃতি স্থায়ী হয় তাই সংবেদী স্মৃতি । একটি পাত্রের দিকে এক পলক তাকানোর ফলে পাত্রটির আকার কেমন ছিল, বর্ণ কি ছিল ইত্যাদি যে সব তথ্য মস্তিস্কে সংরক্ষিত হয় তা সংবেদী স্মৃতির উদাহরণ । অথবা একসারি শব্দ এক সেকন্ডের পর্যবেক্ষণে পর যতগুলো মনে রাখা যাই তাও সংবেদী স্মৃতির উদাহরন । এটি একটি স্বতঃস্পূর্ত প্রক্রিয়া । অধিকাংশ সময়ই পর্যবেক্ষক যা দেখে সব মনে রাখতে পারে না ।

জর্জ স্পারলিং (১৯৬৩) প্রথম সংবেদী স্মৃতি নিয়ে গবেষনা করেন । তিনটি ধাপে তিনি পরীক্ষাটি করেন । তিনটি সারিতে ১২ টি বর্ণকে নিচের মত সাজিয়ে নেন ।

                                                                     *F    T       Y       C
                                                                     *K     D      N       L
                                                                     *Y     W      B      M
  • প্রথম ধাপে- কিছু সংখ্যক লোককে বর্ণ গুলো ১/২০ সেকন্ডের জন্য দেখিয়ে তালিকাটি সরিয়ে নেয়া হয় । এইক্ষেত্রে অধিকাংশ লোক ৪-৫ টি বর্ণ স্মরণ করতে পেরেছিল ।
  • দ্বিতীয় ধাপে- প্রথম সারির বর্ণ দেখানোর পর একটি উচুঁ সুর বাজানো হয় । এইভাবে দ্বিতীয় সারি দেখানোর পর একটি মধ্যম সুর বাজানো হয় এবং তৃতীয় সারির পর নিচুঁ সুর বাজানো হয় । এবার সবাই সব বর্ণই স্মরণ করতে পেরেছিল ।
  • তৃতীয় ধাপে- বর্ণ গুলো বিভিন্ন সময় ধরে(২ সেকেন্ড, ৫ সেকেন্ড) দেখানো হয় ।
  • এই পরীক্ষা থেকে স্পারলিং দেখান যে, প্রায় ১২ টির কাছাকাছি তথ্য সংবেদী স্মৃতিতে ধরে রাখা সম্ভব । কিন্তু এই তথ্যগুলো মস্তিষ্ক থেকে দ্রুত (কয়েক শত মিলিসেকেন্ড) মুছে যায় ।
  • সংবেদী স্মৃতি তিন ধরনের হয়্। কিছু দেখার মাধ্যমে যে সংবেদী স্মুতি জমা হয় তা আইকনিক সংবেদী স্মৃতি। বৃষ্টির সময় বিজলি । কিছু শোনার ফলে যে সংবেদী স্মৃতির জমা হয় তা ইকোইক সংবেদী স্মৃতি। কাঠে গর্ত করার সময় পেরেকের উপর হাতুড়ির আঘাতের শব্দ । স্পর্শের কারণে সৃষ্ট সংবেদী স্মৃতি হল হ্যাপ্টিক সংবেদী স্মৃতি ।
  • আইকনিক স্মৃতি ১ সেকন্ডের ও কম সময়ের জন্য স্থায়ী হয় । ইকোইক স্মৃতি ২-৩ সেকন্ডের জন্য স্থায়ী হয় ।

তথ্যসূত্রঃ[সম্পাদনা]

  • Wikipedia (English)
  • Understanding Psychology by Robert Feldman