সন্ন্যাসী কাঁকড়া

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
সন্ন্যাসী কাঁকড়া
সময়গত পরিসীমা: ১৩৬–০Ma
Calliactis and Dardanus 001.JPG
Dardanus calidus
বৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্য: Animalia
পর্ব: Arthropoda
উপ-পর্ব: Crustacea
শ্রেণী: Malacostraca
বর্গ: Decapoda
Infraorder: Anomura
মহাপরিবার: Paguroidea
Latreille, 1802
Families

সন্ন্যাসী কাঁকড়া হল দশ জোড়া ঊপাঙ্গ বিশিষ্ট এবং খোলসাবৃত দেহের অধিকারী প্রাণী । এরা Paguroidea অধিপরিবারের অন্তর্গত প্রাণী ।[১] নামে কাঁকড়া হলেও, কাঁকড়ার সাথে এদের সম্পর্ক নেই । বরং চিংড়ী'র সাথে তাদের সম্পর্ক রয়েছে । সাগর তীরে জোয়ারের সময় ডুবে যায় কিন্তু ভাটার সময় পানির উপরে থাকে এমন এলাকায় এদের দেখা যায় । অধিকাংশ সন্ন্যাসী কাঁকড়া প্রজাতি নরম তলপেটের অধিকারী । মৃত শামুকের খোলসের ভেতর ঢুকে এরা নিজেদেরকে রক্ষা করে । খোলসটা তারা সবসময় পিঠে করে বয়ে বেড়ায় । শামুকের খোলসের ভেতরের অক্ষটিকে শক্ত ভাবে আঁকড়ে ধরার জন্য এদের তলপেটের শেষ প্রান্তটি বিশেষ ভাবে অভিযোজিত । বয়সের সাথে সাথে দেহও যখন আকারে বৃদ্ধি পায়, সন্ন্যাসী কাঁকড়া তার পুরান খোলসটি ছেড়ে অপেক্ষাকৃত বড় আকারের আরেকটি খোলস খুঁজে নেয় । এভাবে বার বার পুরান বাড়ি পেছনে ফেলে যাওয়ার আচরণ থেকেই সন্ন্যাসী কাঁকড়া নামকরণ ঘটেছে ।

এযাৎ পাঁচশ প্রজাতির সন্ন্যাসী কাঁকরা চিহ্নিত হয়েছে। তাদের বেশিরভাগই সাগর সৈকত থেকে শুরু করে তলদেশ পর্যন্ত সাগরের বিভিন্ন গভীরতায় বাস করে । তবে ক্রান্তীয় অঞ্চলে শুকনা মাটিতে বসবাসরত প্রজাতিও দেখা যায় । এদের কোন কোনটি আকারে বেশ বড়-সড় হয়ে থাকে ।

সন্ন্যাসী কাঁকড়া'র খোলস থেকে বেরিয়ে আসা। সন্ন্যাসী কাঁকড়া প্রথমে নিজের বাড়ি হিসেবে ব্যবহৃত শামুকের খোলসের ভেতর থেকে উঁকি মেরে দেখে নেয়, তারপর বেরিয়ে আসে।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Patsy McLaughlin & Michael Türkay (2011)। "Paguroidea"। in R. Lemaitre & P. McLaughlin। World Paguroidea & Lomisoidea databaseWorld Register of Marine Species। সংগৃহীত November 25, 2011