লুসি (অস্ট্রালোপিথেকাস)

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
লুসি
Lucy blackbg.jpg
তালিকার নম্বর এএল ২৮৮-১
প্রচলিত নাম লুসি
প্রজাতি অস্ট্রালোপিথেকাস আফারেনসিস
বয়স ৩.২ মিলিয়ন বছর[১]
আবিষ্কারের স্থান আফার ডিপ্রেশন, ইথিওপিয়া
আবিষ্কারের তারিখ নভেম্বর ২৪, ১৯৭৪ (1974-11-24)
আবিষ্কারক ডনাল্ড ইয়োহানসন
মরিস তাইয়েব
Yves Coppens
টম গ্রে[২]

লুসি হচ্ছে এএল ২৮৮-১-এর সাধারণ নাম, শতাধিক কতিপয় হাড়ের টুকরা যা এক অস্ট্রালোপিথেকাস আফারেনসিস নারীর ৪০ শতাংশ কংকালের প্রতিনিধিত্ব করে। ১৯৭৪ সালে ইথিওপিয়ার আওয়াশ উপত্যকার হাডার অঞ্চলে যার ফসিল খুঁজে পাওয়া গিয়েছিল। অস্ট্রালোপিথেকাস ৪০ থেকে ৩০ লক্ষ বছর আগে আমাদের পূর্বপুরুষ, আকারে আমাদের এখনকার আকৃতির চেয়ে একটু ছোট৷ অস্ট্রালোপিথেকাসের নামকরা ফসিল হচ্ছে “লুসি”, বিজ্ঞানী ডনাল্ড ইয়োহানসন এই ফসিলটি খুজে পান। এই আবিষ্কারকে আশ্চর্যজনক বৈজ্ঞানিক হিসেবে বিবেচনা করা হয়। আনুমানিক ৩.২ মিলিয়ন বছর আগে লুসি বেঁচে ছিল।[১][৩] এবং তাকে হোমিনিড হিসেবে শ্রেণীকরণ করা হয়েছিল। [৪]

লুসি ৩.২ মিলিয়ন বছর পুরনো এক স্ত্রী অস্ট্রালোপিথেকাসের কঙ্কাল। তখন পাওয়া হাড়ের সংখ্যা কম থাকলেও ধীরে ধীরে বিগত কয়েক বছরে এই লুসির আরো ১০২ টি হাড়ের সন্ধান পাওয়া গেছে। সেগুলো মিলিয়ে এখন লুসিকে অনেকটাই পূর্ণাঙ্গ রূপ দেয়া সম্ভব হয়ে পড়েছে। ছবিতে লুসির কঙ্কালের রেপ্লিকা ও লুসির বাস্তব চেহারার কল্পিত রূপ দেখতে পাচ্ছেন। এই কঙ্কালটির নাম লুসি রাখা হয়েছিল বীটলসের জনপ্রিয় গান 'Lucy in the sky with diamonds' অনুসারে। ইথিওপিয়ার স্থানীয় ভাষায় এর নাম দেয়া হয়েছিল 'Dinknesh', যার অর্থ 'আশ্চর্যজনক'।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. ১.০ ১.১ "Mother of man - 3.2 million years ago"। BBC Home। সংগৃহীত 2008-10-10 
  2. "Institute of Human Origins"। সংগৃহীত 2007-08-30 
  3. Johanson, Donald; Edey, Maitland (1981). Lucy, the Beginnings of Humankind. St Albans: Granada. ISBN 0-586-08437-1.
  4. Rak, Y.; Ginzburg, A.; Geffen, E. (2007). "Gorilla-like anatomy on Australopithecus afarensis mandibles suggests Au. Afarensis link to robust australopiths". Proceedings of the National Academy of Sciences 104 (16): 6568.

আরও পড়ুন[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]