প্রধান ধর্মাবলম্বী গোষ্ঠীসমূহ

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Major religious groups as a percentage of the world population in 2005 (Encyclopaedia Britannica). In summary, religious adherence of the world's population is as follows: "Abrahamic": 53.5%, "Indian": 19.7%, irreligious: 14.3%, "Far Eastern": 6.5%, tribal religions: 4.0%, new religious movements: 2.0%.
Predominant religions of the world, mapped by state
Map showing the prevalence of "Abrahamic" (purple), and "Indian" (yellow) religions in each country.
Map showing the relative proportion of Christianity (red) and Islam (green) in each country.

প্রধান ধর্ম হিসেবে কিছু ধর্মকে অন্যান্য ধর্ম থেকে আলাদা করার সর্বজনীন কোনো উপায় নেই, সাধারণত সকল বিশ্বাসীর নিকট তার নিজের বিশ্বাসই 'প্রধান'। তথাপি - ধর্মাবলম্বীদের সংখ্যা এবং ধর্ম নিয়ে পন্ডিতদের দেওয়া সংজ্ঞার ভিত্তিতে এ ধরনের পার্থক্য করতে দেখা যায়।

কোনো ধর্ম বা ধর্মাবলম্বী গোষ্ঠী সুনির্দিষ্টভাবে নির্ধারণ করাও কঠিন একটি কাজ। অনেক ধর্মের রয়েছে নানা ফেরকা এবং পারস্পরিক সংশ্লিষ্টতা। যেমন, ধর্মের তালিকায় খ্রিস্ট ধর্ম-উদ্ভূত বিভিন্ন ফেরকার কোনটি আলাদা ধর্ম হিসেবে ধরা হবে আর কোনটি খ্রিস্ট ধর্মে অন্তর্ভুক্ত হবে সে বিষয় একমত হওয়া সহজ নয়। একইভাবে, আহ্‌মাদিয়ারা নিজেদের মুসলিম মনে করলেও অনেক ইসলামি ধর্মীয় ও রাজনৈতিক গোষ্ঠী তাদের ভিন্ন ধর্মানুসারী বলে দাবী করেন - এমতাবস্থায় আহ্‌মাদিয়াদের মুসলিম ধরা হবে কিনা সে বিষয়ও বিতর্ক থেকে যায়।

অনুসারীর সংখ্যার ভিত্তিতে ধমূসমূহ[সম্পাদনা]

ধর্মসমূহ ও অনুসারী সংখ্যা[সম্পাদনা]

প্রধান ধর্ম নির্ধারণের সবচেয়ে প্রচলিত উপায় হল ধর্মানুসারীদের সংখ্যার ভিত্তিতে তা নির্ধারণ। তবে এই সংখ্যা-উপাত্তও সবসময় যথেষ্ট যাচাই বা নির্ভরযোগ্য নয়। সাধারণত কোনো দেশের আদমশুমারি থেকে এই উপাত্ত সংগ্রহ করা হয়। যুক্তরাষ্ট্র, বা ফ্রান্সের মত যেসব দেশে আদমশুমারিতে ব্যক্তির ধর্মীয় বিশ্বাস সংক্রান্ত তথ্য থাকে না, সেখানে জরিপের মাধ্যমে তথ্য সংগ্রহ করা হয়। এই উপাত্তের নির্ভরযোগ্যতার পেছনে অন্তরায়সমূহ হল - সকল আদমশুমারি বা জরিপে একই ধরনের প্রশ্ন করে ব্যক্তির বিশ্বাস সংক্রান্ত তথ্য না নেয়া, ধর্মের পরিধি বা সংজ্ঞা নিয়ে সর্বত্র একই মত না থাকা, জরিপকারী সংস্থার পক্ষপাত ও দৃষ্টিভঙ্গি। তারপরেও এই উপাত্তের সমাহার মোটা দাগে পৃথিবীর বৃহত্তম ধর্মাবলম্বী গোষ্ঠীগুলোকে সনাক্ত করে।

অনুসারীর সংখ্যার ভিত্তিতে বিভিন্ন বিশ্বাসের তালিকা নিম্নে দেয়া হল। এখানে এমন বিশ্বাসী গোষ্ঠীও অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে, যাদের বিশ্বাস সার্বিকভাবে কোনো ধর্ম গঠন করে না, আবার তারা অন্য কোনো সংঘবদ্ধ ধর্মীয় গোষ্ঠীরও অন্তর্গত নন।

  1. খ্রিস্ট ধর্ম - ২১০ কোটি (গোড়াপত্তন ২৭ খ্রিস্টাব্দ)
  2. ইসলাম ধর্ম - ১৪০ কোটি (গোড়াপত্তন ৬২২ খ্রিস্টাব্দ)
  3. নাস্তিকতাবাদ, অজ্ঞেয়বাদ, ইহবাদ, জুচে, ধর্মহীন ** - ১১০ কোটি
  4. হিন্দু ধর্ম - ৯০কোটি (গোড়াপত্তন আনুমানিক খ্রিস্টপূর্ব ১৫ শতক)
  5. চীনা লোকধর্ম - ৩৯ কোটি ৪০ লক্ষ
  6. বৌদ্ধ ধর্ম - ৩৭ কোটি ৬০ লক্ষ (গোড়াপত্তন আনুমানিক খ্রিস্টপূর্ব ৬ শতক)
  7. উপজাতীয়দের বিশ্বাসসমূহ - ৩০ কোটি
  8. আফ্রিকীয় সনাতন বিশ্বাসসমূহ - ১০ কোটি
  9. শিখ ধর্ম - ২ কোটি ৩০ লক্ষ (গোড়াপত্তন ১৫ শতক)
  10. আত্মাবাদ - ১ কোটি ৫০ লক্ষ (গোড়াপত্তন মধ্য ১৯ শতক)
    • কোনো একক সংঘবদ্ধ ধর্মীয় গোষ্ঠী নয়।
  11. ইহুদি ধর্ম - ১ কোটি ৪০ লক্ষ (গোড়াপত্তন আনুমানিক খ্রিস্টপূর্ব ১৩ শতক)
  12. বাহাই ধর্ম - ৭০ লক্ষ (গোড়াপত্তন ১৯ শতক)
  13. জৈন ধর্ম - ৪২ লক্ষ (গোড়াপত্তন ৬ শতক)
  14. শিন্টো - ৪০ লক্ষ (গোড়াপত্তন আনুমানিক খ্রিস্টপূর্ব ৩ শতক)
    • যারা শিন্টোকে ধর্ম হিসেবে মেনে নিয়ে পালন করেন হিসেবে উল্লেখ করেছেন, শুধু তারাই এখানে অন্তর্ভুক্ত। এছাড়া ইতিহাস, জাতি ও ঐতিহ্যগতভাবে যারা নিজেদের শিন্টো মনে করেন, তাদেরকেও এখানে অন্তর্ভুক্ত করলে এ সংখ্যা দাঁড়াবে প্রায় ১০ কোটি বা ততোধিক।
  15. কাও দাই - ৪০ লক্ষ (গোড়াপত্তন ১৯২৬)
  16. জরথুস্ত্র ধর্ম - ২৬ লক্ষ (গোড়াপত্তন আনুমানিক খ্রিস্টপূর্ব ৬ শতক)
  17. ফালুন গং - ২১ লক্ষ* (গোড়াপত্তন ১৯৯২)
    • বিভিন্ন জরিপকারী সংস্থা একে কোনো আলাদা বিশ্বাস বা ধর্ম মনে না করায় এর অনুসারীদের প্রকৃত সংখ্যা অযাচাইযোগ্য রয়ে গেছে।
  18. টেনরিকিও - ২০ লক্ষ (গোড়াপত্তন ১৮৩৮)
  19. নব্য-পেগান ধর্ম - ১০ লক্ষ (গোড়াপত্তন ২০ শতক)
  20. একত্ববাদী সর্বজনীনতাবাদ - ৮ লক্ষ (গোড়াপত্তন ১৯৬১)
  21. রাসটাফারি আন্দোলন - ৬ লক্ষ (গোড়াপত্তন ১৯৩০ এর গোড়ার দিকে)
  22. সাইন্টোলজি - ৫ লক্ষ (গোড়াপত্তন ১৯৫২)

ফালুন গং ব্যতীত অন্যান্য ধর্মাবলম্বী-সংখ্যার উপাত্ত নেয়া হয়েছে Adherents.com এই পাতার ২০০৫ সংস্করণ হতে। বিভিন্ন উৎস হতে সকল উপাত্ত নিয়ে এই তালিকা সংকলনে যে পদ্ধতি গ্রহণ করা হয়েছে, তা বিস্তারিত জানতে Adherents.com-এর ব্যাখ্যা দেখুন।

* ফালুন গং-এর উপাত্তটি গণপ্রজাতন্ত্রী চীনের ১৯৯৯ সালের উপাত্ত হতে পাওয়া; ২০০৪ সাল নাগাদ তাদের নেতৃত্ব অনুসারীর সংখ্যা ১০ কোটি বলে দাবী করেছেন।

** adherents.com এ জুচে-কে আলাদা ধর্ম হিসেবে দেখানো হলেও প্রাতিষ্ঠানিকভাবে এই মতবাদ কোনো ধর্মীয় বিশ্বাস প্রচার করে না এবং ইহবাদী বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন বিধায় এটিকে ধর্মীয় নয় এমন মতবাদের শ্রেণীতে রাখা হল।

অনুসারীর ভিত্তিতে অনুক্রম[সম্পাদনা]

খ্রিস্টান সায়েন্স মনিটর ধর্মগুলোর অনুক্রম নির্ধারণের ক্ষেত্রে কেবল সুসংগঠিত ধর্মসমূহ বিবেচনায় এনেছে। এখানে পত্রপত্রিকায় প্রকাশিত একটি তালিকা উল্লেখিত হল। ১৯৯৮ সালে পত্রিকায় "Top 10 Organized Religions in the World" নামে বিশ্বের সর্ববৃহৎ ১০ টি ধর্মের তালিকা প্রকাশিত হয়:

# ধর্মের নাম অনুসারী সংখ্যা (*১) উৎপত্তির সময়কাল (*২) দ্রষ্টব্য (*২, *৩)
খ্রিস্টান ধর্ম ২১০০ মিলিয়ন ২৭ খ্রিস্টাব্দ সবচেয়ে বেশী সংখ্যাক অনুসারী রয়েছে। (*৪) ইউরোপ, আমেরিকা, দক্ষিণ আফ্রিকা এবং ওশেনিয়ার সবচেয়ে প্রভাবশালী ধর্ম।
ইসলাম ধর্ম ১৪০০ মিলিয়ন ৬১০ খ্রিস্টাব্দ বহুল প্রচারিত একটি ধর্ম। মূলত মধ্য প্রাচ্য, দক্ষিণ এশিয়া, দক্ষিণ-পূর্ব এষিয়া (ফিলিপাইনপূর্ব তিমুর বাদে), মধ্য এশিয়া, উত্তর আমেরিকা এবং পশ্চিম আফ্রিকা অঞ্চলে বেশী অনুসারী রয়েছে।
হিন্দু ধর্ম ৯০০ মিলিয়ন ১৫০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দ, কিছু বিষয়ে ২৬০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দ সুপরচিত ধর্মসমূহের মধ্যে প্রাচীনতম। এজন্য সনাতন ধর্ম নামেও পরিচিত। মূলত ভারত, নেপাল, শ্রীলংকার উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ এবং ইন্দোনেশিয়ার, বালি উপ-প্রদেশে আধিক্য রয়েছে।
বৌদ্ধ ধর্ম ৩৭৬ মিলিয়ন খ্রিস্টপূর্ব ৬ষ্ঠ শতাব্দী উৎপত্তি ভারতে। পূর্ব এশিয়া ববং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া অঞ্চলে অনুসারী বেশী।
কনফুসীয় ধর্ম ১৫০ মিলিয়ন খ্রিস্টপূর্ব ৬ষ্ঠ শতাব্দী পূর্ব চীনে বেশী
শিখ ধর্ম ২৩ মিলিয়ন ১৪৬৯-১৭০৮ খ্রিস্টাব্দ পাঞ্জাব অঞ্চলে সবচেয়ে বেশী। ভারতপাকিস্তান উভয় দেশেরই এতে অংশ রয়েছে।
ইহুদি ধর্ম ১৪ মিলিয়ন খ্রিস্টপূর্ব ১৩শ শতাব্দী ইস্রাইল দেশটিতে ইহুদিরা সংখ্যাগরিষ্ঠ জাতি। তবে সবচেয়ে বেশী ইহুদী বাস করে যুক্তরাষ্ট্রে
বাহাই ধর্ম ৭ মিলিয়ন ১৯শ শতাব্দী ১০ টি ধর্মের গ্রুপে নবীনতম। খ্রিস্টান ধর্মের পরে সবচেয়ে বেশী প্রচারিত ধর্ম। প্রথম ১০টির মধ্যে শতকরা হারের দিক থেকে সবচেয়ে বর্ধনশীল ধর্ম। (*4)
জৈন ধর্ম ৪.২ মিলিয়ন খ্রিস্টপূর্ব ৬ষ্ঠ শতাব্দী মূলত ভারতে
১০ শিন্তো ধর্ম ৪ মিলিয়ন ৩০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দ মূলত জাপানে। একসময় এটি জাপানের রাষ্ট্রীয় ধর্ম ছিল।

*১ অনুসারী সংখ্যা Adherents.com[১], থেকে নেয়া। ২০০৫ সালের তথ্য অনুসারে।

*২ কেবল বামের দুইটি কলাম খ্রিস্টান সায়েন্স মনিটর থেকে নেয়া হয়েছে। বাকি তথ্যগুলো এই নিবন্ধের জন্য সংগৃহীত।

*৩ ভৌগোলিক তথ্যসমূহ এনসাইক্লোপিডিয়া ব্রিটানিকা বিশ্বকোষের ককটি টেবিল থেকে নয়া হয়েছে। Worldwide Adherents of All Religions by Six Continental Areas, ২০০২ সালের তথ্য মতে।

*৪ World Christian Encyclopedia-এর ধর্ম পাতার অনুসারী সংখ্যার বিন্যাস অনুসারে করা হয়েছে, David A. Barrett, 2001, p. 4.