তাসমানিয়ার নেকড়ে

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
Thylacine[১]
সময়গত রেঞ্জ: Early Pliocene to Holocene
ওয়াশিংটন, ডি.সি.তে তাসমানিয়ার নেকড়ে, ১৯০২
সংরক্ষণ অবস্থা
বৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্য: প্রাণী জগৎ
পর্ব: কর্ডাটা
উপ-পর্ব: Vertebrata
মহাশ্রেণী: Tetrapoda
শ্রেণী: স্তন্যপায়ী
উপ-শ্রেণী: Theria
অধঃশ্রেণী: Marsupialia
বর্গ: Dasyuromorphia
পরিবার: Thylacinidae
গণ: Thylacinus
প্রজাতি: T. cynocephalus
দ্বিপদী নাম
Thylacinus cynocephalus
(Harris, 1808)

তাসমানিয়ার নেকড়ে অস্ট্রেলিয়া তাসমানিয়া দ্বীপে পাওয়া যেত। এই প্রাণীর নাম ছিল থাইলাসিন। একে নেকড়ে বাঘ নামেও ডাকা হত।এই প্রাণীকে পশু পালনের আতঙ্ক মানা হত।

আকার[সম্পাদনা]

বড় আকারের কুকুরের মত। এর পেছনে সরু ডোরাকাটা লেজ ছিল। গায়ের রং ছিল বাদামি।

বৈশিষ্ট্য[সম্পাদনা]

এটি সবচেয়ে বড় মারসুপিয়াল ছিল।

পুন্দর্শ্ন[সম্পাদনা]

বিলুপ্ত হওয়ার ঘোষণা দেওয়ার পরেও একে দেখা গেছে বলে জানা যায়।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. Groves, C. (2005)। Wilson, D. E., & Reeder, D. M., সম্পাদক। Mammal Species of the World (3rd সংস্করণ)। Johns Hopkins University Press। পৃ: 23। ISBN 0-801-88221-4 

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]