উজবেক ভাষা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে

টেমপ্লেটে একটি আইএসও ৬৩৯ ভাষা কোডের প্রয়োজন উজবেক ভাষা (O‘zbek, Ўзбек, أۇزبېك এ্যজ়্‌বেক্‌) আলতায়ীয় ভাষাপরিবারের তুর্কীয় শাখার একটি ভাষা। ভাষাটি চাগাতাই তুর্কীয় ভাষা থেকে উৎপত্তি লাভ করেছে। চাগাতাই তুর্কীয় একটি বিলুপ্ত ভাষা, যেটি অতীতে এককালে সমগ্র মধ্য এশিয়ার আন্তর্জাতিক ভাষা ছিল। চাগাতাই শব্দটি চাগাতাই খানাত বা রাজ্য থেকে এসেছে। মঙ্গোল সেনাপতি চেঙ্গিজ খানের দ্বিতীয় সন্তান চাগাতাই খান রাজ্যটি শাসন করতেন।

চাগাতাই তুর্কীয় ভাষা আরবি লিপিতে লেখা হত এবং এতে আরবিফার্সি ভাষার প্রভাব পড়েছিল। ১৪শ শতকে সমরকন্দের অধিবাসী তৈমুর লঙ চাগাতাই রাজ্য দখল করেন। তৈমুরের উত্তরসূরীদের পরবর্তীকালে উজবেকরা উচ্ছেদ করে। উজবেকদের একাংশ কাজাখ নামে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। ১৯১৭ সালে কাজাখ ও উজবেক উভয় দলই সোভিয়েত ইউনিয়নের অংশে পরিণত হয়। সোভিয়েত ইউনিয়নের পতনের পর উজবেকিস্তানকাজাখস্তান পৃথক রাষ্ট্রে পরিণত হয়।

উজবেক ভাষাকে উত্তর ও দক্ষিণ এই দুইটি প্রধান উপভাষা দলে ভাগ করা যায়। ১৯৮৯ সালে উত্তর উজবেক ভাষাটি উজবেকিস্তান রাষ্ট্রের রাষ্ট্রভাষায় পরিণত হয়। সেখানে প্রায় ১ কোটি ৬৫ লক্ষ লোক এই ভাষায় কথা বলেন। বর্তমানে ভাষাটি গণমাধ্যম, শিক্ষা, বিনোদন, ব্যবসা ও প্রশাসনে ব্যবহার করা হচ্ছে। উজবেকিস্তানের অর্ধেকেরও বেশি সংবাদপত্র উজবেক ভাষায় প্রকাশিত হয়। প্রাথমিক থেকে মাধ্যমিক-পরবর্তী স্তরের জন্য উজবেক ভাষা শিক্ষার মাধ্যম হিসেবে ব্যবহৃত। উজবেকিস্তান ছাড়াও এটি মধ্য এশিয়ার অন্যান্য দেশে এবং উত্তর আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, ও ইউরোপের কিছু প্রবাসী সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ে প্রচলিত।

দক্ষিণী উজবেক ভাষায় আফগানিস্তানের প্রায় ১৫ লক্ষ লোক কথা বলেন। এদের সাক্ষরতার হার কম। দক্ষিণী উজবেক ভাষা পাকিস্তানতুরস্কেও প্রচলিত।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]