উইলো

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
উইলো
Salix alba 'Vitellina-Tristis'
Morton Arboretum acc. 58-95*1
বৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্য: Plantae
(unranked): Angiosperms
(unranked): Eudicots
(unranked): Rosids
বর্গ: Malpighiales
পরিবার: Salicaceae
গোত্র: Saliceae[১]
গণ: Salix
L.
প্রজাতি

প্রায় ৪০০[২]

উইলো (ইংরেজি: Willow, Sallow, Osier) এক ধরনের স্যালিক্স গোত্রীয় গাছ এবং গুল্মজাতীয় বৃক্ষ। আকার ও জন্মানোর উপর নির্ভর করে এটি বিভিন্ন ধরনের হয়ে থাকে। কিন্তু সকলেই এ গাছটিকে অন্যান্য গাছের তুলনায় খুবই পছন্দ করে। সমগ্র বিশ্বে প্রায় ৪০০ প্রজাতির উইলো বৃক্ষ রয়েছে।[২] এ জাতীয় বৃক্ষ প্রধানতঃ উত্তর গোলার্ধের শীতপ্রধান এলাকার ভেজা, স্যাঁতসেতে মাটিতে জন্মাতে দেখা যায়।

অনেক ধরনের উইলো দো-আঁশলা উদ্ভিদরূপে পরিচিত। তন্মধ্যে প্রাকৃতিক এবং চাষাবাদের মাধ্যমে উৎপাদিত উইলো নিজেদের প্রজাতিতে খুবই উর্বর প্রকৃতির হয়ে থাকে। কিছু ক্ষুদ্রাকৃতি প্রজাতির উইলোকে সাধারণভাবে ওজিয়ার এবং সোয়ালো নামে পরিচিত। ল্যাটিন ভাষার স্যালিক্স থেকে সোয়ালো নামটির উৎপত্তি ঘটেছে। অধিকাংশ প্রজাতিই উইলো নামে পরিচিত কিন্তু চিকন পাতার অধিকারী ঝোপজাতীয় কিছু প্রজাতিকে ওজিয়ার এবং মোটা পাতাবিশিষ্ট প্রজাতিকে স্যালো নামে চিহ্নিত করা হয়।

বৈশিষ্ট্যাবলী[সম্পাদনা]

উইলো গাছের পুষ্পগুচ্ছগুলো ঝুলন্ত অবস্থায় থাকে। এগুলো বসন্তের শুরুতে জন্মায়। প্রায়শঃই পাতা জন্মানোর পূর্বে কিংবা নতুন পাতা গজানোর সময় ফুল ফুঁটে থাকে। সচরাচরভাবে প্রায় সকল উইলো বৃক্ষের ডালপালা মাটিতে পুঁতলে অথবা ভাঙ্গা শাখা কিছুদিন ভূমিতে অবস্থান করলে খুব দ্রুত শিকড় গজায়। ব্যতিক্রম হিসেবে রয়েছে স্যালিক্স ক্যাপ্রিয়া এবং স্যালিক্স এমাইগডেলোইডেস উপ-প্রজাতিগুলো। উইলো নদী তীরবর্তী এলাকায় বেশী দেখা যায়। এদের শিকড়গুলো ব্যাপক ও বিস্তৃত হওয়ায় নদীর তীরকে পানির ধাক্কা থেকে রক্ষা করে।

প্রতিবেশগত প্রভাব[সম্পাদনা]

প্রজাপতিমথজাতীয় কিছু প্রজাতির লার্ভার খাদ্য জোগানোয় উইলো বৃক্ষ আদর্শস্থানীয়। অস্ট্রেলিয়ার সর্বত্র নদীতীরবর্তী এলাকায় পানির ক্ষয় থেকে রক্ষার জন্য স্বল্পসংখ্যক উইলো বৃক্ষ রোপণ করা হয়। কিন্তু বর্তমানে তা অবাঞ্ছিত আগাছায় পরিণত হয়েছে। ফলে কর্তৃপক্ষ তা উৎপাটন করছেন।[৩][৪]

ভেজা মাটিতে উইলো'র শিকড় খুব দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে এবং আগ্রাসী ভূমিকা পালন করে। আবাসিক এলাকায় উইলো রোপিত হলে এর শিকড় পয়ঃনিষ্কাষণ ব্যবস্থা, স্যানিটারী ব্যবস্থা, কংক্রিট, সিরামিক পাইপ, পিভিসি পাইপের সংযোগস্থলে ঢুকে মারাত্মক সমস্যার সৃষ্টি করে। পানি সরবরাহ ব্যবস্থায় বিঘ্নতার পরিবেশ সৃষ্টিতে এর জুড়ি নেই।[৫][৬]

ব্যবহার[সম্পাদনা]

উইলো বৃক্ষের পাতা এবং বাকল অ্যাসিরিয়া, সুমের এবং প্রাচীন মিশরের পুস্তিকাতে অসহনীয় ব্যথা এবং জ্বর প্রশমনে ব্যবহারের কথা উল্লেখ করা হয়েছে।[৭][৮] প্রাচীন গ্রীক চিকিৎসক হিপোক্রেটিস খ্রীস্ট-পূর্ব ৫ম শতকে চিকিৎসাশাস্ত্রে এর ভূমিকার কথা লিখে গেছেন।

আমেরিকার আদিবাসীরা তাদের চিকিৎসার সুবিধার্থে উইলো ব্যবহার করতো। কেননা, উইলো স্যালিসিন নামীয় রাসায়নিক উপাদান রয়েছে যা এসপিরিনের অন্যতম প্রধান উপাদান।[৯] মাথা ব্যথা, পেটের ব্যথা এবং অন্যান্য শারীরিক ব্যথা থেকে সাময়িকভাবে প্রশমন ঘটায়।

শুরুর দিকে মানুষ উইলোর কাঠ দিয়ে ঝুড়ি, মাছ ধরার ফাঁদ, বেড়া বা বাড়ীর আচ্ছাদন তৈরী করতো। খ্রীষ্ট-পূর্ব ৮৩০০ অব্দে উইলো থেকে মাছ ধরার জাল তৈরী করেছিল।[১০] এছাড়াও, বাক্স, ক্রিকেট ব্যাট, চেয়ার, পুতুল, পতাকাদণ্ড, খেলনা, বাঁশী ইত্যাদি সরঞ্জামাদি তৈরী করা হয়। বর্তমানে এর কাঠ দিয়ে, মণ্ড, আঁশ, কাগজ, রশি এবং দড়ি ইত্যাদিও তৈরী করা যায়।

উইলো থেকে পরিমিত পরিমাণে সুমধুর পানীয় উৎপাদিত হয় যা মৌমাছি কর্তৃক মধুতে পরিণত হয়। দরিদ্র জনগোষ্ঠী এককালে প্রায়শঃই এর ফুল রান্নাকার্যে ব্যবহার করে খাদ্যোপযোগী করতো।[১১]

জৈবজ্বালানী তৈরীতে এর ব্যাপক ভূমিকা রয়েছে। কেননা, তুলনামূলকভাবে অধিক পরিমাণে ও দ্রুত কার্বন উৎপাদনে উইলো ধারাবাহিকতা রাখতে সক্ষম।[১২]

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Genus Salix (willows)"Taxonomy। UniProt। সংগৃহীত 2010-02-04 
  2. ২.০ ২.১ Mabberley, D.J. 1997. The Plant Book. Cambridge University Press #2: Cambridge.
  3. Albury/Wodonga Willow Management Working Group (December 1998)। "Willows along watercourses: managing, removing and replacing"। Department of Primary Industries, State Government of Victoria।  |month= প্যারামিটার অজানা, উপেক্ষা করুন (সাহায্য)
  4. Cremer, Kurt W. (2003)। "Introduced willows can become invasive pests in Australia" (PDF)। 
  5. Salix spp. UFL/edu, Weeping Willow Fact Sheet ST-576, Edward F. Gilman and Dennis G. Watson, United States Forest Service
  6. "Rooting Around: Tree Roots", Dave Hanson, Yard & Garden Line News Volume 5 Number 15, University of Minnesota Extension, October 1, 2003
  7. James Breasted (English translation)। "The Edwin Smith Papyrus"। সংগৃহীত 2007-06-09 
  8. "An aspirin a day keeps the doctor at bay: The world's first blockbuster drug is a hundred years old this week"। সংগৃহীত 2007-06-09 
  9. W. Hale White। "Materia Medica Pharmacy, Pharmacology and Therapeutics"। সংগৃহীত 2011-04-02 
  10. The palaeoenvironment of the Antrea Net Find The Department of Geography, University of Helsinki
  11. Hageneder, Fred (2001). The Heritage of Trees. Edinburgh : Floris. ISBN 0-86315-359-3. p.172
  12. Aylott, Matthew J.; Casella, E; Tubby, I; Street, NR; Smith, P; Taylor, G (2008)। "Yield and spatial supply of bioenergy poplar and willow short-rotation coppice in the UK" (PDF)। New Phytologist 178 (2): 358–370। ডিওআই:10.1111/j.1469-8137.2008.02396.xপিএমআইডি 18331429। সংগৃহীত 2008-10-22 

গ্রন্থপঞ্জী[সম্পাদনা]

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]