ইয়েলেনা ইসিনবায়েভা

উইকিপিডিয়া, মুক্ত বিশ্বকোষ থেকে
ইয়েলেনা ইসিনবায়েভা
Елена Исинбаева
২০১০ সালে দোহায় ইসিনবায়েভা
ব্যক্তিগত তথ্য
পূর্ণ নাম ইয়েলেনা গাদজিভনা ইসিনবায়েভা
জাতীয়তা রুশ
জন্ম (১৯৮২-০৬-০৩) ৩ জুন ১৯৮২ (বয়স ৩২)
ভলগোগ্রাদ, রাশিয়া সমাজতান্ত্রিক প্রজাতন্ত্র, সোভিয়েত ইউনিয়ন
উচ্চতা –৮ (১.৭৪ মিটার)
ওজন ৬৫ কিলোগ্রাম (১৪৩ পাউন্ড)
ক্রীড়া
দেশ  রাশিয়া
ক্রীড়া ট্র্যাক এন্ড ফিল্ড অ্যাথলেটিক্স
ঘটনাসমূহ পোল ভল্ট
কোচ সার্গেই ত্রফিমোভ
সাফল্য ও খেতাব
বিশ্ব ফাইনাল আউটডোর: ২০০৩, ২০০৫, ২০০৭
ইনডোর: ২০০৩, ২০০৪, ২০০৬, ২০০৮
আঞ্চলিক ফাইনাল আউটডোর: ২০০২, ২০০৬
ইনডোর: ২০০৫
অলিম্পিক ফাইনাল ২০০৪, ২০০৮
সর্বোচ্চ বিশ্ব স্থান ১ম (২০০৫-২০০৯)
ব্যক্তিগত সেরা আউটডোর: ৫.০৬ ডব্লিউআর (২০০৯)
ইনডোর: ৫.০১ ইআর(২০১২)
৬ আগস্ট, ২০১২তে হালনাগাদ

ইয়েলেনা গাদজিভনা ইসিনবায়েভা (রুশ: Елена Гаджиевна Исинбаева; জন্ম: ৩ জুন, ১৯৮২) ভলগোগ্রাদে জন্মগ্রহণকারী রাশিয়ার বিখ্যাত প্রমিলা পোল ভল্টার। ইতিমধ্যেই ২০০৪, ২০০৮ - দুইবার অলিম্পিকে স্বর্ণপদক জয় করেছেন। ২০০৫, ২০০৭, ২০০৯ - তিনবার বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হবার খেতাব ধরে রেখেছেন। এছাড়াও তিনি পোল ভল্ট ক্রীড়ায় বর্তমান বিশ্বরেকর্ডের অধিকারিনী। তার এ অসামান্য ক্রীড়ানৈপুণ্যের দরুণ তিনি বৈশ্বিক ক্রীড়াপরিমণ্ডলে সর্বকালের সেরা প্রমিলা পোল-ভল্টার হিসেবে আখ্যায়িত হয়ে আছেন।[১][২]

প্রারম্ভিক জীবন[সম্পাদনা]

তাবাসরন বাবা ও রুশ মায়ের গর্ভে ইসিনবায়েভা’র জন্ম ভলগোগ্রাদে। ৫ থেকে ১৫ বয়স পর্যন্ত জিমন্যাস্টিক্সে প্রশিক্ষণ নেন তিনি। কিন্তু এ ক্রীড়া তিনি পরিত্যাগ করেন। কেননা, তার দৈহিক গড়ন জিমন্যাস্টিক্সের জন্য উপযোগী ছিল না।

ছয় মাস পর পোল-ভল্টের উপর প্রশিক্ষণ নেন। ১৬ বছর বয়সে ১৯৯৮ সালের বিশ্ব যুব ক্রীড়ায় অংশ নিয়ে প্রথমবারের মতো বৃহৎ প্রতিযোগিতা জয় করেন। মস্কোয় অনুষ্ঠিত এ ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় ৪ মিটার উচ্চতা অতিক্রম করেন। এটি ছিল তার তৃতীয় অ্যাথলেটিক প্রতিযোগিতা।[৩] ফ্রান্সের আনেসেতে অনুষ্ঠিত ১৯৯৮ সালের ওয়ার্ল্ড জুনিয়র চ্যাম্পিয়নশিপে একই দূরত্ব অতিক্রম করলেও তা পদকপ্রাপ্তির জন্য সহায়ক ছিল না।

১৯৯৯ সালে পোল্যান্ডের বাইগোসজে অনুষ্ঠিত বিশ্ব যুব চ্যাম্পিয়নশিপে ৪.১০ মিটারের বাঁধা অতিক্রম করে তিনি তার দ্বিতীয় সোনার পদক জয় করেন। ২০০০ সালের ওয়ার্ল্ড জুনিয়র চ্যাম্পিয়নশিপে পুণরায় প্রথম স্থান অধিকার করেন জার্মানির আন্নিকা বেকারকে পিছনে ফেলে। একই বছর অস্ট্রেলিয়ার সিডনিতে অনুষ্ঠিত গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকে প্রথমবারের মতো প্রমিলা পোল্ট ভল্ট ক্রীড়াবিষয়রূপে অন্তর্ভূক্ত করা হয়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের স্টেসি দ্রাগিলা স্বর্ণপদক জয় করলেও একই ক্রীড়াবিষয়ে ইসিনবায়েভা যোগ্যতা পর্বে উত্তরণ ঘটাতে পারেননি।

ক্রীড়াজীবন[সম্পাদনা]

ইসিনবায়েভা বৃহৎ প্রতিযোগিতাসমূহে এ পর্যন্ত নয়বার চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন। তন্মধ্যে - অলিম্পিক, বিশ্ব আউটডোর ও ইনডোর, ইউরোপীয় আউটডোর ও ইনডোর অন্যতম। এছাড়াও, তিনি ২০০৭ ও ২০০৯ সালের আইএএএফ গোল্ডেন লীগ সিরিজে জ্যাকপট বিজয়ী ছিলেন। কিন্তু, ২০০৯ ও ২০১০ সালের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে দূর্বল ক্রীড়াশৈলী উপস্থাপনের জন্য ক্রীড়া থেকে দীর্ঘমেয়াদে অনুপস্থিত ছিলেন।

২০০৫ সালে বিশ্বের প্রথম মহিলা হিসেবে পাঁচ মিটারের বাঁধা অতিক্রম করেন। ২৫ জুলাই, ২০০৯ তারিখে সুইজারল্যান্ডের জুরিখে অনুষ্ঠিত আউটডোর প্রতিযোগিতায় ৫.০৬ মিটার অতিক্রান্ত করে বর্তমান বিশ্বরেকর্ডটি গড়েন।[৪] ৫.০১ মিটারের উচ্চতা নিয়ে তার গড়া বিশ্বরেকর্ডটি মাত্র এক বছর টিকেছিল।[৫] এ পর্যন্ত আটাশবার প্রমিলাদের পোল ভল্টে বিশ্বরেকর্ড ভঙ্গ করেছেন।[৬] ২ মার্চ, ২০১৩ তারিখে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জেন সুর ইশিবায়েভা’র সাথে দ্বিতীয় মহিলা হিসেবে পাঁচ মিটারের বাঁধা স্পর্শ করতে পেরেছেন। এরফলে সুর ইসিনবায়েভা’র ইনডোর বিশ্বরেকর্ড স্পর্শ করেন।

সম্মাননা[সম্পাদনা]

আইএএএফ কর্তৃক ২০০৪, ২০০৫ এবং ২০০৮ সালের বর্ষসেরা প্রমিলা অ্যাথলেট হিসেবে মনোনীত হন ইসিনবায়েভা। লরেস কর্তৃপক্ষ তাকে ২০০৭ ও ২০০৯ সালের বর্ষসেরা বিশ্ব মহিলা ক্রীড়াব্যক্তিত্ব হিসেবে ঘোষণা করে। ভ্যালেরি অ্যাডামস, উসেইন বোল্ট, ভ্যারোনিকা ক্যাম্পবেল-ব্রাউন, জ্যাক ফ্রেইটাগ, জানা পিটম্যান, ডানি স্যামুয়েলস এবং ডেভিড স্টর্ল - এ আটজন ক্রীড়াবিদের সাথে তিনিও একজন, যিনি যুব, জুনিয়র এবং সিনিয়রদের বিশ্ব অ্যাথলেটিক চ্যাম্পিয়নশিপ জয় করেছেন।

তথ্যসূত্র[সম্পাদনা]

  1. "Pole-Vaulter Keeps a Low Profile During Her Ambitious Ascent"The New York Times। 2 February 2007। সংগৃহীত 19 June 2011 
  2. "Athletics: Pole-vault diva toys with foes and fans"The New York Times। 29 August 2007। সংগৃহীত 19 June 2011 
  3. [ Russia’s pole vault champ hails Moscow’s 2010 Youth Olympics bid | Sports | RIA Novosti. En.rian.ru (18 December 2007). Retrieved 21 April 2011.]
  4. "World Records Ratified". Retrieved November 9, 2009.
  5. "New world record for Isinbayeva"Eurosport। Yahoo! Sports। 23 January 2012। সংগৃহীত 24 January 2012 
  6. "Pole Vault Results". USATF. 2 March 2013. Retrieved 3 March 2013.

বহিঃসংযোগ[সম্পাদনা]

রেকর্ড
পূর্বসূরী
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র স্টেসি দ্রাগিলা
রাশিয়া ভেতলানা ফিওফানোভা
রাশিয়া ভেতলানা ফিওফানোভা
প্রমিলাদের পোল ভল্টে বিশ্বরেকর্ডধারী
১৩ জুলাই, ২০০৩ – ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০০৪
৬ মার্চ, ২০০৪ - ৪ জুলাই, ২০০৪
২৫ জুলাই, ২০০৪ –


উত্তরসূরী
রাশিয়া ভেতলানা ফিওফানোভা
রাশিয়া ভেতলানা ফিওফানোভা
নির্ধারিত হয়নি
পুরস্কার
পূর্বসূরী
দক্ষিণ আফ্রিকা হিস্ট্রি ক্লোয়েত
বর্ষসেরা প্রমিলা ট্র্যাক ও ফিল্ড অ্যাথলেট
২০০৪-২০০৫


উত্তরসূরী
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সানিয়া রিচার্ডস
পূর্বসূরী
যুক্তরাজ্য কেলি হোমস
ক্রোয়েশিয়া ব্ল্যাঙ্কা ভ্লাসিচ
বর্ষসেরা প্রমিলা ইউরোপীয় অ্যাথলেট
২০০৫
২০০৮


উত্তরসূরী
সুইডেন ক্যারোলিনা ক্লাফট
স্পেন মার্তা ডোমিনগুয়েজ
পূর্বসূরী
ক্রোয়েশিয়া জেনিকা কস্তেলিচ
বেলজিয়াম জাস্টিন হেনিন
বর্ষসেরা বিশ্ব মহিলা ক্রীড়াব্যক্তিত্ব
২০০৭
২০০৯


উত্তরসূরী
বেলজিয়াম জাস্টিন হেনিন
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসেরেনা উইলিয়ামস
পূর্বসূরী
স্পেন রাফায়েল নাদাল
ক্রীড়ায় প্রিন্স অফ অস্তারিয়াস পুরস্কার
২০০৯


উত্তরসূরী
স্পেন স্পেন জাতীয় ফুটবল দল